আজ ৩রা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৬ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

পাকুন্দিয়ায় অবৈধ বালু উত্তোলনে ১০ জনের কারাদণ্ড ও বাল্কহেড ড্রেজারসহ ট্রলার অপসারণ


ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করার অপরাধে ১০ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। শনিবার (৩ অক্টোবর) দুপুরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাদেরকে এ দণ্ডাদেশ দেন কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ফজলে রাব্বি।
ভ্রাম্যমাণ আদালত সূত্র জানায়, নদী ভাঙন রোধে অবৈধ বালু উত্তোলনকারীদের বিরুদ্ধে দেশব্যাপী অভিযান চলছে।

এর প্রেক্ষিতে কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসন কর্তৃক গঠিত টাস্কফোর্সের মাধ্যমে শুক্রবার (২ অক্টোবর) দিবাগত রাত ১২টা থেকে ভোর ৪টা পর্যন্ত ব্রহ্মপুত্র নদের পাকুন্দিয়া ও হোসেনপুর উপজেলার সীমান্তবর্তী স্থানে অভিযান পরিচালনা করা হয়।

এসময় অবৈধভাবে ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে বালু উত্তোলন করায় ১৫ জনকে আটক করা হয় এবং বালু উত্তোলনে ব্যবহৃত দুটি ড্রেজার মেশিন পানিতে ডুবিয়ে দেওয়া হয়।
ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনাকালে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ফজলে রাব্বি, পাকুন্দিয়া উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) একেএম লুৎফর রহমানসহ পুলিশ, র‌্যাব ও বিআইডব্লিউটিএ’র সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।


জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ফজলে রাব্বি জানান, অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করার অপরাধে বালু মহাল ও মাটি ব্যবস্থাপনা আইন ২০১০ এর আওতায় ওই ১০ ব্যক্তিকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।
অবৈধ বালু উত্তোলনকারীদের বিরুদ্ধে টাস্কফোর্সের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও তিনি জানিয়েছেন।

Comments are closed.

     এই ক্যাটাগরিতে আরো সংবাদ