আজ ১৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

পাকুন্দিয়ায় আ.লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে সাংবাদিকসহ আহত-৩০

কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া উপজেলায় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালনকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে সাংবাদিকসহ অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছেন। প্রায় দুই ঘণ্টা ধরে সংঘর্ষে এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। বৃহস্পতিবার (২৩ জুন) বিকালে উপজেলার পুলেরঘাট বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর কর্মসূচি পালন উপলক্ষে কিশোরগঞ্জ-২ আসনের সাবেক এমপি ও পাকুন্দিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক সোহরাব উদ্দিন এবং বর্তমান এমপি নূর মোহাম্মদের সমর্থকরা পুলেরঘাট বাজারে পাল্টাপাল্টি মিছিল করেন। পরে কেক কেটে কর্মসূচির আয়োজন করেন। এতে এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। বিকাল ৪টার দিকে সোহরাব উদ্দিনের সমর্থকরা মিছিল নিয়ে পুলেরঘাট এলাকায় গেলে প্রতিপক্ষের লোকজন হামলা চালায় বলে অভিযোগ ওঠে।

এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের লোকজন সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। সংঘর্ষে ওই এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। ইটপাটকেল ও ধারালো অস্ত্রের আঘাতে আহত হন উভয় পক্ষের ২০ জন। একপর্যায়ে দায়িত্বরত সাংবাদিকদের ওপর চড়াও হয় একটি পক্ষ। তারা চ্যানেল টোয়েন্টি ফোরের সাংবাদিক খায়রুল আলম ফয়সালকে ইট দিয়ে মাথা ফাটিয়ে দেয়। আরও কয়েকজন সাংবাদিক হামলার শিকার হন। প্রথম আলোর জেলা প্রতিনিধি তাফসিলুল আজিজের মোটরসাইকেল ভাঙচুর করা হয়। খবর পেয়ে পাকুন্দিয়া ও কিশোরগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পুলিশের গাড়ি দিয়ে আহত সাংবাদিক ফয়সালকে হাসপাতালে পাঠানো হয়। কিশোরগঞ্জ সদর সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মো. আলামিন বলেন, ‘সংঘর্ষের পর কিশোরগঞ্জ থেকে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ পাঠানো হয়। পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এতে কয়েকজন আহত হন। পাকুন্দিয়া থানার ওসি সারোয়ার জাহান বলেন, ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।

Comments are closed.

     এই ক্যাটাগরিতে আরো সংবাদ