আজ ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ১লা ডিসেম্বর, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

হোসেনপুরে প্রতিবন্ধী যুবতীকে ধর্ষণ, আটক ধর্ষক

 

কিশোরগঞ্জের হোসেনপুরে বিয়ের প্রলোভনে শ্রবণ ও বাক প্রতিবন্ধী যুবতী (২৭) প্রতিবেশী চার সন্তানের জনকের দ্বারা ধর্ষণের শিকার হয়ে একমাস ১০ দিনের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েছেন। তরুণীর মায়ের করা মামলায় ধর্ষক লুৎফর রহমান (৩৯)কে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে।

গ্রেপ্তারের পর শুক্রবার (১৯ আগস্ট) তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে। ধর্ষক লুৎফর রহমান উপজেলার সিদলা ইউনিয়নের হারেঞ্জা গ্রামের মৃত ইদ্রিস আলীর ছেলে।
পুলিশ ও ভুক্তভোগী পরিবার সূত্রে জানা যায়, চার সন্তানের জনক লুৎফর রহমানের কুদৃষ্টি পড়ে ওই বাক ও শ্রবণ প্রতিবন্ধী ২৭ বছরের অবিবাহিত তরুণীর উপর। ওই তরুণীর মা-বাবা হতদরিদ্র হওয়ার সুবাদে বিয়ের প্রলোভনে চার সন্তানের জনক প্রতিবেশী লুৎফর একাধিকবার তাকে ধর্ষণ করে আসছিল।
এক পর্যায়ে তরুণী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন। এ দিকে মেয়ের শারীরিক পরিবর্তন দেখতে পেয়ে বুধবার (১৭ আগস্ট) তার মা জানতে চাইলে ওই তরুণী লুৎফর রহমানের নাম বলে দেন।
পরে তার বাবা-মা এলাকার মেম্বার আতিকুল ইসলাম ওমর ও গণ্যমান্য ব্যক্তিদের বিষয়টি জানান।
এতে কোনো প্রতিকার না পেয়ে বৃহস্পতিবার (১৮ আগস্ট) হোসেনপুর থানায় ভিকটিমের মায়ের অভিযোগের ভিত্তিতে হোসেনপুর থানায় মামলা (নং-০৬, তারিখ- ১৮/০৮/২০২২, ধারা নারী শিশু আইনের ৯(১)) রুজু হয়।
মামলার তদন্তকারী অফিসার এসআই মেহেদী হাসান অভিযান চালিয়ে ধর্ষক লুৎফর রহমানকে গ্রেপ্তার করেন।
হোসেনপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আসাদুজ্জামান টিটু বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, আসামিকে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Comments are closed.

     এই ক্যাটাগরিতে আরো সংবাদ