আজ ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৮শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

মোংলায় একাত্তরের ভয়াবহ দামেরখন্ড গণহত্যা দিবস পালন

মোংলা থেকে মো. নূর আলমঃ মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে একাত্তরের অন্যতম ভয়াবহ দামেরখন্ড গণহত্যা দিবস পালন উপলক্ষে মোংলায় দামেরখন্ড বধ্যভূমি স্মৃতিসৌধে বিভিন্ন সরকারি-বেসরকরি সংস্থার উদ্যোগে ২৩ মে সোমবার সকালে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পন, আলোচনা সভা ও সন্ধ্যায় মোমবাতি প্রজ্জ্বলন কর্মসুচি পালন করা হয়।

সোমবার সকাল ১১টায় দামেরখন্ড বধ্যভ‚মি স্মৃতিসৌধে উপজেলা প্রশাসন, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট, মোংলা নাগরিক সমাজ, সুন্দরবন ইউনিয়ন পরিষদ, মিঠাখালী ইউনিয়ন পরিষদ, প্রথম আলো বন্ধুসভা, ব্রেভ ইয়ুথ গ্রুপসহ বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি সংস্থার পক্ষ থেকে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পন করা হয়। শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পন শেষে সোমবার সকাল সাড়ে ১১টায় স্মৃতিসৌধ চত্বরে সুন্দরবন ইউপি চেয়ারম্যান ইকরাম ইজারদারের সভাপতিত্বে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন উপজেলা নির্বাহি অফিসার কমলেশ মজুমদার। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান বাগেরহাট জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. ইদ্রিস আলী ইজারদার, সাবেক উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট ও মোংলা নাগরিক সমাজের সভাপতি সাংবাদিক মো. নূর আলম শেখ, মিঠাখালী ইউপি চেয়ারম্যান উৎপল মন্ডল, টাটিবুনিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সুধাংশু ঢালী, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের নাজমুল হক, ইউনুস মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক শেখর মন্ডল, প্রথম আলো বন্ধুসভা’র প্রদীপ মন্ডল, আবুল কাশেম, দি হাঙ্গার প্রোজেক্ট বাংলাদেশ’র মো. শাহা আলম, ব্রেভ ইয়ুথ গ্রুপ লিডার তুফান মলঙ্গী, অনীক মন্ডল, মঙ্গলী খাতুন, লিজা খাতুন, রাজন সরদার প্রমূখ। আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন ১৯৭১ সালের ২৩ মে দামেরখন্ড এলাকার রজ্জব আলী ফকিরের নেতৃত্বে স্থানীয় রাজাকারদের সহায়তায় নারকীয় হত্যাযজ্ঞে শতাধিক নারী-পুরুষ শহীদ হন। নিকৃষ্টতম এই হত্যাযজ্ঞ পরিচালনার সময়ে নারীদের ইজ্জ্বত লুন্ঠন হয়। বক্তারা মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় তরুন প্রজন্মকে গড়ে তোলার মধ্য দিয়ে অসাম্প্রদায়িক-গণতান্ত্রিক এবং শোষনহীন সমাজ বিনির্মানের আহ্বান জানান। বক্তারা আরো বলেন দামেরখন্ডসহ সারাদেশে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে যারা নারকীয় হত্যাকান্ডের সাথে যুক্ত তাদের বিচারের দাবী জানান। আলোচনা সভায় বক্তারা ২৫ মার্চকে বিশ্ব গণহত্যা দিবস ঘোষনা করার জন্য জাতিসংঘের কাছে জোর দাবী জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     More News Of This Category